পদ্মা রিসোর্ট - Padma Resort (খরচ, বুকিং ও ভ্রমণের তথ্য)

পদ্মা রিসোর্ট
চিত্র: পদ্মা রিসোর্ট

পদ্মা রিসোর্ট
ঠিকানা: লৌহজং থানা ঘাটের বিপরীতে, মুন্সীগঞ্জ, ঢাকা
পদ্মা রিসোর্ট ফোন নম্বর:
বুকিং করতে এবং বিস্তারিত জানতে
+8801746026134
+88 01625788920
ইমেইল: [email protected]

পদ্মা রিসোর্ট - Padma Resort

ঢাকা বিভাগের মুন্সিগঞ্জ জেলার লৌহজং উপজেলার পদ্মা নদীর বুকে গড়ে ওঠেছে পদ্মা রিসোর্টি। তাই যারা কর্মব্যস্ত শহরের গন্ডি পেড়িয়ে প্রকৃতিক সৌন্দর্য এবং নদীর সান্নিধ্য পেতে চান তাদের জন্য এটি একটি আদর্শ স্থান। যান্ত্রিক জীবনের ধরাবাঁধা নিয়ম, কোলাহল, বায়ু দূষণ এবং জীবনের শত ব্যস্ততার মাঝে ছুটির দিনগুলোতে একটু নির্মল প্রশান্তি এনে দিতে পারে পদ্মা রিসোর্টি। তাই পরিবার অথবা বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডা দেওয়া জন্য পদ্মা রিসোর্টি খুব সুন্দর একটি স্থান।

শীতের সময় কটেজের চারপাশ নানা রঙয়ের ফুলে ভরে যায় আর বর্ষার সময় চারদিক পানি ভরে ওঠে। রিসোর্টের উঠোনে ইজি চেয়ারের বাসে রাতের খোলা আকাশের অপূর্ব দৃশ্য উপভোগ করা যায়। আর দিনের বেলায় দেশি নৌকায় চড়ে পদ্মায় ঘুরে বাড়ানো যায়।

পদ্মা রিসোর্টে কিভাবে যাবেন

ঢাকার যেকোনো প্রান্ত থেকে পদ্মা রিসোর্টে যেতে চাইলে প্রথমে লৌহজং আসতে হবে। এরপর গুলিস্তান থেকে ছেড়ে আসা ইলিশ বা গাংচিল পরিবহন সরাসরি লৌহজং থানার মসজিদ পর্যন্ত আসতে পারবেন। জনপ্রতি ৭০ টাকা করে ভাড়া পারবে। এছাড়া স্বাধীন পরিবহনে মিরপুর ১০, শাহবাগ বা ফার্মগেট থেকে আসতে পারবেন।

অথবা মাওয়া ঘাট রোডের বাস গোধূলি বা গ্রেট বিক্রমপুর পরিবহন ওঠলে মাওয়া ঘাটের পূর্বে লৌহজং থানায় যাওয়ার চৌরাস্তার মোড়ে নামতে হবে। সেখান থেকে অটোরিকশা অথবা রিকশা করে আসতে ১৫ মিনিট সময় লাগবে। এছাড়াও নিজস্ব গাড়িতে করে পদ্মা রিসোর্টে সরাসরি আসতে পারবেন। সেক্ষেত্রে ৩০ টাকা করে দুই জায়গায় টোল দিতে হবে।

পদ্মা রিসোর্টে থাকার খরচ

পদ্মা রিসোর্টে থাকতে গেলে বিভিন্ন খাতে টাকা খরচ হবে। যেমন- কটেজ ভাড়া, খাবার, পদ্মায় ঘুরে বেড়ানো এবং রিসোর্ট এর প্রবেশ ফি ইত্যাদি। নিম্নে খরচার তালিকা দেওয়া হলো-

পদ্মা রিসোর্ট রুম প্রাইস (Padma resort room price):

  • সারা দিনের কটেজ ভাড়া ভ্যাটসহ - ২৩০০ টাকা।
  • প্রতি রাতের কটেজ ভাড়া ভ্যাটসহ - ২৫০০ টাকা
  • দিন ও রাত মিলে কটেজ ভাড়া ভ্যাটসহ - ৩৪৫০ টাকা।
পদ্মায় ঘুরে বেড়ানোর খরচ:
  • ট্রলারে ঘুরতে গেলে ঘন্টা প্রতি ভাড়া পারবে - ১২০০ টাকা।
  • স্পিডবোটে ঘুরতে গেলে ঘন্টা প্রতি ভাড়া পারবে - ২৫০০ টাকা
  • সাম্পান নৌকায় ঘুরতে গেলে ঘন্টা প্রতি ভাড়া পারবে - ১২০০ টাকা।
পদ্মা রিসোর্টে প্রবেশ ফি: জনপ্রতি ৫০ টাকা।

পদ্মা রিসোর্টের খাবার ব্যবস্থা

পদ্মা রিসোর্টে রয়েছে একটি সু-সজ্জিত রেস্টুরেন্ট যেখানে অনায়েসে ২০০ জন লোক লাঞ্চ বা ডিনারসহ যেকোন পার্টি আয়োজন করতে পারবেন। তবে রেস্টুরেন্টে ঢুকার পূর্বে রিসোর্ট অফিস থেকে ফুড টোকেন সংগ্রহ করতে হবে। এতে ভ্যাটসহ দাম পরবে জনপ্রতি ৩৫০ টাকা। এই ৩৫০ টাকা মেনু সেটে থাকবে-

  • ভাত,
  • সবজি,
  • ডাল,
  • সালাত,
  • ইলিশ মাছ ফ্রাই (১ পিস),
  • মুরগীর মাংস (বড় ১ পিস)।

তবে খাবার পানি আলাদা করে কিনে নিতে হবে। আর ১ লিটার মিনারেল ওয়াটারের দাম পরবে ৪০ টাকা। সেই সাথে আরও কিনতে পারবেন পেপসি ১.৫ লিটার - ১০০ টাকা, ক্যান - ৪০ টাকা এবং পেপসি ২ লিটার - ১৫০ টাকা।

পদ্মা রিসোর্টে যা কিছু পাবেন

পদ্মা রিসোর্টের বাহিরে বিচ চেহার রয়েছে। যেখানে হেলান দিয়ে পদ্মা পারের নয়নাভিরাম সৌন্দর্য উপভোগ করতে পারবেন। এই রিসোর্টে নিজস্ব ঘোড়া রয়েছে। চাইলে ঘোড়া চড়ে ঘুরে বাড়াতে পারবেন। তাছাড়া যারা নৌকা ভ্রমণ করতে পছন্দ করেন তাদের জন্য খুব সুন্দর একটি জায়গা। রিসোর্টের নিজস্ব রিভারক্রুজ ও স্পিডবোটের ব্যবস্থা রয়েছে। চাইলে একসাথে ২০-২৫ জন কান্ট্রিবোটে ওঠাতে পারবেন। আর যাদের মাছ ধারা শখ আছে তারা ফিশিং বোটে চড়তে পারবেন। আর সব বোটে লাইফ জ্যাকেট রয়েছে সেফটি কিট হিসেবে।

পদ্মা রিসোর্টের কটেজ সমূহ

এই রিসোর্টে থাকা জন্য ছোট-বড় মিলিয়ে মোট ১৬ টি ডুপ্লেক্স কটেজ রয়েছে। এর মধ্যে ৪টি কটেজের নামকরণ করা হয়েছে ৪টি ঋতুর নামে। আর বাকি ১২টি কটেজের নামকরণ করা হয়েছে বাংলা ১২ মাসের নামে। আর প্রতিটি কটেজে রয়েছে ২টি সিঙ্গাল বেডরুম, ১টি মাস্টার বেডরুম, ১টি ড্রয়িংরুম, ১টি বাথরুম এবং ২টি ব্যালকনি। প্রতেক্যটি কটেজে সর্বোচ্চ ৮ জন করে সদস্য থাকতে পারবেন। আর ডুপ্লেক্স এইসব কটেজের নিচতলায় রয়েছে ১টি সিঙ্গল বেড, ১টি টেবিল এবং ১ সেট সোফা।

Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url