ব্রি ধান ৮৮ এর বৈশিষ্ট্য ও চাষ পদ্ধতি

ব্রি ধান ৮৮ এর বৈশিষ্ট্য

আধুনিক উচ্চফলনশীল ব্রি ধান ৮৮ বোরো মৌসুমে হাওর এলাকায় চাষাবাদ করতে পারবেন। ব্রি ধান ৮৮ এর জীবনকাল ১৪০ থেকে ১৪৩ দিন যা ব্রি ধান ২৮ এর চেয়ে ৩ থেকে ৪ দিন কম। জাতটি গড়ে ৭.০ টন থেকে ৮.৫ টন (প্রতি হেক্টর) পর্যন্ত ফলন দিতে সক্ষম।

ব্রি ধান ৮৮ এর বৈশিষ্ট্য

  1. আধুনিক উচ্চফলনশীল বা উফশী ধানের সকল বৈশিষ্ট্য বিদ্যমান ব্রি ধান ৮৮ তে।
  2. ব্রি ধান ২৮ এর থেকে এই জাতের গাছ খাটো (গড় উচ্চতা ৯০ সেন্টিমিটারের কম) হয় যে কারণে ঢলে পড়ে না।
  3. গাছের ডিগ পাতা লম্বা, খাড়া এবং ধান পাকার পরেও পাতার রং সবুজ থাকে।
  4. জাতটির বিশেষ বৈশিষ্ট্য হলো শীষ থেকে ধান ঝরে পড়ে না।
  5. ধানের আকৃতি মাঝারি চিকন, চালের রং সাদা এবং ভাত ঝরঝরে হয়।
  6. পরিপুষ্ট ১ হাজারটি ধানের ওজন ২২.১ গ্রাম।
  7. চালে প্রোটিন এর পরিমাণ ৯.৮% এবং অ্যামাইলেজের পরিমাণ ২৬.৩%।

ব্রি ধান ৮৮ চাষ পদ্ধতি

  1. বীজ তলায় বীজ বপণ: ০১ অগ্রহায়ণ থেকে ১৬ অগ্রহায়ণ (১৫ই নভেম্বর - ৩০ই নভেম্বর) পর্যন্ত বীজ তলায় বীজ বপণ করার উপযুক্ত সময়।
  2. চাষের উপযোগী জমি: মাঝারি উঁচু থেকে উঁচু জমি এই জাতের চাষের উপযোগী।
  3. চারার বয়স: ৩৫ থেকে ৪০ দিন
  4. রোপন দূরত্ব: ২৫ × ১৫ সেন্টিমিটার ব্যবধান বা দূরত্ব বজায় রেখে রোপন করতে হবে।
  5. চারার সংখ্যা: চারা রোপন করার সময় প্রতি গোছায় ২ থেকে ৩ টি করে চারা দিতে হবে।
  6. সার প্রয়োগ বিঘা প্রতি: টিএসপি- ১৩ কেজি, জিপসাম- ১৫ কেজি, এমওপি- ২০ কেজি, জিংক সালফেট (দস্তা )- ১.৫ কেজি ও ইউরিয়া- ৩৩ কেজি।
    • জমি প্রস্তুত করার শেষ চাষের সময় সবটুকু জিপসাম, টিএসপি, জিংক সালফেট (দস্তা) ও অর্ধেক এমওপি সার একসাথে প্রয়োগ করতে হবে।
    • ইউরিয়া সার তিন কিস্তিতে দিতে হবে যথা- ১ম কিস্তি রোপনের ১০ থেকে ১৫ দিন পর ৫০% প্রয়োগ করতে হবে, ২য় কিস্তি ২৫ থেকে ৩০ দিন পর ৩০% প্রয়োগ করতে হবে এবং ৩য় কিস্তি ৪০ থেকে ৪৫ দিন পর ২০% প্রয়োগ করতে হবে।
    • ইউরিয়ার ৩য় কিস্তির সাথে এমওপি সারের বাকী অর্ধেক প্রয়োগ করতে হবে।
  7. আগাছা দমন বা আগাছামুক্ত: জমি আগাছামুক্ত রাখতে হবে ৪০ থেকে ৪৫ দিন পর্যন্ত।
  8. সেচ ব্যবহার: প্রয়োজন অনুযায়ী সেচ দিতে হবে।
  9. রোগবালাই বা পোকামাকড় দমন: অন্যান্য জাতের তুলনায় এই জাতের রোগের আক্রমণ কম। তবে, রোগ বা পোকামাকড়ের আক্রমণ দেখা দিলে অনুমোদিত মাত্রায় অনুমোদিত বালাইনাশক প্রয়োগ করতে হবে।
  10. ফসল কাটা: ধান কাটার উপযুক্ত সময় ২৫ চৈত্র থেকে ০৩ বৈশাখ (০৮ই এপ্রিল - ১৬ই এপ্রিল) পর্যন্ত।
No Comment
Add Comment
comment url