ব্রি ধান ৪৮ এর বৈশিষ্ট্য ও চাষ পদ্ধতি

ব্রি ধান ৪৮ এর বৈশিষ্ট্য

২০০৮ সালে জাতীয় বীজবোর্ড দ্বারা অনুমোদিত "ব্রি ধান ৪৮" হল রোপা আউশ মৌসুমের একটি ধানের জাত। অধিক ফলনশীল এ জাতটির জীবনকাল ১১০ দিন। সাধারণত "রোপা আউশ" এলাকার জন্য "ব্রি ধান ৪৮" উপযোগী। ব্রি ধান ৪৮ এর গড় উৎপাদন প্রতি হেক্টরে ৫ টন হয়ে থাকে, তবে উপযুক্ত পরিচর্যা ও অনুকূল পরিবেশে হেক্টর প্রতি ৫.৫ টন প্রর্যন্ত ফলন দিতে সক্ষম।

ব্রি ধান ৪৮ এর বৈশিষ্ট্য:

  1. ব্রি ধান ৪৮ একটি আগাম জাত৷
  2. জাতটির জীবনকাল ১১০ দিন।
  3. গাছের গড় উচ্চতা ১০৫ সে.মি. পর্যন্ত হয়ে থাকে।
  4. গাছের কান্ড অনেক শক্ত হয়।
  5. ব্রি ধান ৪৮ এর চাল সাদা ও মাঝারি মোটা আকারের হয়।
  6. চালে ৮.৫% প্রোটিন রয়েছে।
  7. গড় উৎপাদন প্রতি হেক্টরে ৫ টন।

ব্রি ধান ৪৮ চাষ পদ্ধতি:

  1. বীজতলায় বীজ বপন: ৫ই বৈশাখ - ১৭ই বৈশাখ (১৮ই এপ্রিল - ৩০ই এপ্রিল)।
  2. চারার বয়স: ২০-২৫ দিন।
  3. রোপণ দূরত্ব: ২০ x ১৫ সে.মি.।
  4. সার প্রয়োগ বিঘা প্রতি:
    • ইউরিয়া- ২০ কেজি, টিএসপি- ৭ কেজি, এমওপি- ১০ কেজি, জিপসাম- ৫ কেজি এবং জিংক সালফেট- ০.৭ কেজি।
    • জমি শেষ চাষের সময় অর্ধেক ইউরিয়া, সবটুকু টিএসপি, জিপসাম, এমওপি এবং জিংক সালফেট প্রয়োগ করতে হবে।
    • বাকী অর্ধেক ইউরিয়া চারা রোপন করার পর ৩০ থেকে ৪০ দিন পর উপরি প্রয়োগ করে দিতে হবে।
    • ইউরিয়া প্রয়োগ করার ক্ষেত্রে "লিফ কালার চার্ট" (এলসিসি) ব্যবহার করা উত্তম।
  5. আগাছা দমন: জমি আগাছামুক্ত রাখতে হবে চারা রোপন করার পর থেকে ৩০ থেকে ৪০ দিন পর্যন্ত।
  6. রোগবালাই দমন: এই জাতটি কিছুটা "পাতা পোড়া" রোগ প্রতিরোধ করতে পারে। তবে, রোগ দেখা দিলে অনুমোদিত বালাই নাশক অনুমোদিত মাত্রায় প্রয়োগ করতে হবে।
  7. ফসল কাটা: ৩০ই শ্রাবণ - ২০ ভাদ্র (১৫ই আগষ্ট - ০৪ই সেপ্টেম্বর) পর্যন্ত ধান কাটার সঠিক সময়।
Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url